সাবেক ইউপি সদস্য ও আদম বেপারীর বিরুদ্ধে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ - আজকের সংবাদ

সদ্য পাওয়া

Home Top Ad

বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন ০১৯২৬৮৭০৭২৭

Post Top Ad

বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন ০১৯২৬৮৭০৭২৭

সোমবার, ৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০

সাবেক ইউপি সদস্য ও আদম বেপারীর বিরুদ্ধে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ


সাবেক ইউপি সদস্য ও  আদম বেপারীর বিরুদ্ধে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ





আজকের সংবাদ ডেস্কঃ নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলার মঙ্গলেরগাঁও গ্রামে কবির হোসেন (৪৮) নামে  এক ইলেকট্রিশিয়ানকে কুপিয়ে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে সাবেক ইউপি সদস্য ও  আদম বেপারী সৈয়দ মজিবুর রহমান এবং তার দুই ছেলে সন্ত্রাসী দিদার হোসেন,শ্যামল মিয়া ও তার ভাতিজা কসাই জামির হোসেনের বিরুদ্ধে।





রোববার(৬ সেপ্টেম্বর)রাতে উপজেলার পিরোজপুর ইউনিয়নের মঙ্গলেরগাঁও  এলাকায় হাজী আলাউদ্দিন সাহেবের নির্মাণাধীন হাসপাতাল ভবনের সামনে এ ঘটনা  ঘটে। এসময় ইলেকট্রিশিয়ান কবির হোসেনের ডাক চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয় লোকজন গুরুতর আহত কবির হোসেনকে উদ্ধার করে সোনারগাঁ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করেন।





এঘটনায় কবির হোসেন বাদী হয়ে সোমবার(৭সেপ্টেম্বর) সকালে সোনারগাঁ থানায় একটি  মামলা দায়ের করেছেন।





থানায় দায়ের করা মামলার বিবরনীতে উল্লেখ করেন, বিগত ৯ মাস পূর্বে তার  ছেলে রায়হান মিয়াসহ টিপু মিয়া এবং ওমর ফারুক নামে ৩ জনকে এক সঙ্গে সৌদি আরব  পাঠায় সাবেক ইউপি সদস্য আদম বেপারী সৈয়দ মজিবুর রহমান। সৌদি আরবে যাওয়ার  পর থেকে তার ছেলে রায়হান বিভিন্ন সময় ফোন করে তাকে জানায় তার কোন বৈধ  কাগজপত্র, মালিক ও আকামা নেই। সেই জন্য সে কোন কাজ কর্ম করতে না পেরে  অন্যের আশ্রিতা হয়ে অনাহারে, অর্ধাহারে বিদেশের মাটিতে নিধারুন কষ্টে দিন  যাপন করছে।ছেলেকে বৈধ ভাবে কাগজপত্র করে দেওয়ার জন্য ও কাজ কর্মের বিষয়ে একটু তদবির করার জন্য সাবেক ইউপি সদস্য আদম বেপারী সৈয়দ মজিবুর রহমানকে বারবার অনুরোধ করা সত্তেও সে আমাকে বিভিন্ন সময় নানা ভাবে প্রাণ নাশের হুমকি প্রদান করে থাকেন। এরই জের ধরে গত রবিবার রাত সাড়ে ১০ টা সময় পূর্ব  পরিকল্পিত ভাবে সৈয়দ মজিবুর রহমান ও তার দুই ছেলে সন্ত্রাসী দিদার হোসেন,শ্যামল মিয়া ও তার ভাতিজা কসাই জামির হোসেন মিলে দেশীয় অস্ত্র চাকু ছোড়া,লোহার সাবল ও চাপাতি দিয়ে তাকে হত্যার চেষ্টা করে। এসময় ইলেকট্রিশিয়ান কবির  হোসেনের ডাক চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়।  পরে স্থানীয় লোকজন মারাত্মক আহত কবির হোসেনকে উদ্ধার করে সোনারগাঁ উপজেলা  স্বাস্থ্য কমপ্লেক্রো নিয়ে ভর্তি করেন।





স্থানীয় মঙ্গলেরগাঁও এলাকাবাসীর অভিযোগ, সাবেক ইউপি সদস্য ও আদম বেপারী  সৈয়দ মজিবুর রহমান প্রায় ৩০ বছর যাবৎ বিদেশে লোক পাঠানো আদম ব্যবসার সঙ্গে  জড়িত। তার প্রতারনার শিকার হয়ে অনেকেই বিদেশ যেতে না পেরে ভিটে মাটি  বিক্রি করে একেবারেই নিঃস্ব হয়ে পথে বসেছেন। চাঁন্দের চক এলাকার আব্দুর  রাজ্জাক নামে এক ব্যক্তি জানান, তার ছেলে রোহান মিয়াকে বিদেশ পাঠানোর কথা  বলে দুই বছর পূর্বে মজিবুর রহমান টাকা নিয়েছে। সে আমাদেরকে কিছু ভূয়া বিষার  কাগজ পত্র দিয়ে দিনের পর দিন প্রতারনা করছে। এখন সে আমার ছেলেকে বিদেশও  পাঠায় না এবং আমাদের টাকা পয়সাও দেয় না।
দুধঘাটা এলাকার আবুল হোসেন ভূইয়া জানান, আমার ছেলে জনি মিয়াকে গত এক  বছর পূর্বে সৌদি আরব পাঠায় আদম বেপারী সৈয়দ মজিবুর রহমান। আমার ছেলে  বিদেশের মাটিতে বৈধ কাগজপত্র ও আকামা না পাওয়ায় সে ঠিক মত কাজ কর্ম করতে  পারছেনা। অন্যের আশ্রয়ে থেকে খেয়ে না খেয়ে অনেক কষ্টের মাঝে দিন কাটাচ্ছে।





সোনারগাঁ থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানান, হত্যা চেষ্টার ঘটনায় থানায়  মামলা নেওয়া হয়েছে। পুলিশ আসামিদের গ্রেফতারের জন্য অভিযান চালাচ্ছে।


কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Post Bottom Ad

বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন ০১৯২৬৮৭০৭২৭