সোনারগাঁয়ে করোনা উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু, লাশের দাফন দিলো স্বেচ্ছাসেবীরা - আজকের সংবাদ

সদ্য পাওয়া

Home Top Ad

বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন ০১৯২৬৮৭০৭২৭

Post Top Ad

বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন ০১৯২৬৮৭০৭২৭

শনিবার, ১৬ মে, ২০২০

সোনারগাঁয়ে করোনা উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু, লাশের দাফন দিলো স্বেচ্ছাসেবীরা


সোনারগাঁয়ে করোনা উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু, লাশের দাফন দিলো স্বেচ্ছাসেবীরা





আজকের সংবাদ ডেস্কঃ নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ে করোনার উপসর্গ নিয়ে নারগিস নামে এক মহিলার মৃত্যু হয়েছে। উপজেলা প্রশাসনের নির্দেশে লাশ দাফন কাফনের পুরো কাজটি সম্পন্ন করে স্থানীয় এমপি লিয়াকত হোসেন খোকার গঠিত লাশ দাফন কাফন কমিটির স্বেচ্ছাসেবীরা।





শনিবার (১৬ মে) দুপুর ১ টার দিকে করোনার উপসর্গ নিয়ে উপজেলার মোগরাপাড়া ইউনিয়নের বাড়িচিনিস এলাকায় নিজ বাড়িতে তিনি মৃত্যু বরণ করেন ৪৮ বছর বয়সী নারগিস বেগম।





স্থানীয় সাংবাদিকদের মাধ্যমে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে আসে নারায়ণগঞ্জ -৩ আসনের সাংসদ লিয়াকত হোসেন খোকার স্বেচ্ছাসেবক দলের মোঃ নুর নবী জনি,কামরুজ্জামান রানা, সানাউল্লাহ বেপারী, গোলজার,ফারুক সহ ৭ জনের একটি দল। তাদের মাধ্যমে জানতে পেরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ সাইদুল ইসলাম ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে করোনা নমুনা সংগ্রহের বিষয়ে খোঁজ খবর নেনে এবং স্বেচ্ছাসেবক দলকে বিভিন্ন দিক নির্দেশনা প্রদান করেন।









পুরো বিষয়টি স্বেচ্ছাসেবক দলের মাধ্যমে মনিটরিং করছিলেন এমপি লিয়াকত হোসেন খোকা। স্বেচ্ছাসেবক টিমের সদস্যদের নিয়ে করোনা সংক্রমণে মারা যাওয়া ব্যক্তির লাশ তিনতলা থেকে নামিয়ে ভ্যান গাড়িতে করে কবরস্থানে নিয়ে যাওয়া হয়। স্বেচ্ছাসেবক দলের সরবরাহকৃত লাশ দাফন কাফন কাজের সরঞ্জাম দিয়ে নিজস্ব নিরাপত্তা বজায় রেখে লাশ জানাজার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। পরবর্তীতে ইসলামী আন্দোলনের একজন মাওলানাকে দিয়ে আসর নামাজের পর স্থানীয় মসজিদে জানাজা নামাজ শেষে দাফন কাজ সম্পন্ন করা হয়।









জানাজা নামাজে অংশগ্রহণ করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ সাইদুল ইসলাম, স্থানীয় সাংবাদিক মোঃ নুর নবী জনি, কামরুজ্জামান রানা, উপজেলা ইসলামী ফাউন্ডেশন কর্মকর্তা সাংবাদিক আল-আমীন, শেখ এনামুল হক বিদ্যুৎ, রিপন সরকার, রাকিব, স্বেচ্ছাসেবক সানাউল্লাহ, গোলজার, ফারুক, আক্তার, রাতুল সহ স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্যরা।





জানা যায়, সোনারগাঁ উপজেলার মোগরাপাড়া ইউনিয়নের বাড়ীচিনিস এলাকায় ওই ব্যক্তি শ্বাসকষ্ট ও জ্বরে আক্রান্ত হয়ে শনিবার দুপুরে নিজ বাড়ীতে মারা যান।





উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃসাইদুল ইসলাম বলেন, কোনো ব্যক্তি যদি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হন বা তার লক্ষণগুলো যদি করোনাভাইরাসের উপসর্গের সঙ্গে মিলে যায় তাহলে ধর্মীয় বিধি মেনে বিশেষ সতর্কতার সাথে লাশ দাফনের ব্যবস্থা করতে হবে।


কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Post Bottom Ad

বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন ০১৯২৬৮৭০৭২৭